a
Sorry, no posts matched your criteria.
My Bookmark Category
  • Please login to view Category

মায়েদের চুল পরিচর্যা

JFB Bookmark(0)

No account yet? Register

প্রসবোত্তর সময়ে চুল পড়ার জন্য অনেক মা-ই প্রস্তুত থাকেন না। চুল পড়া পুরোপুরি বন্ধ হয়ত করা যায়না, তবে কিছু পদক্ষেপ চুল পড়া কমাতে দৃশ্যমানভাবে সাহায্য করে।
শুরুটা হতে পারে প্রচুর পরিমাণে পানি পান করা দিয়ে। এতে আপনার চুল মজবুত হয় এবং দ্রুত বৃদ্ধি পেতে সহায়তা করে। চুল পড়া কমাতে সঠিক পুষ্টি গ্রহণ করা আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। পর্যাপ্ত পরিমান প্রোটিন, আয়রন, ভিটামিন সি, ওমেগা এবং অন্যান্য ভিটামিন আপনার চুলকে আরও মজবুত করতে সহায়তা করবে।

 

 

চুল ধোয়া কমিয়ে দিন। সপ্তাহে ২ বারের বেশি শ্যাম্পু ব্যবহার করবেন না। শ্যাম্পু করার পরে সবসময় কন্ডিশনার ব্যবহার করুন। আপনি শ্যাম্পু যত কম করবেন আপনার চুল তত স্বাস্থ্যকর থাকবে। চুলের জন্য প্যারাবেন্স, সালফেটস বা রঙ মুক্ত পণ্যগুলি বেছে নিতে চেষ্টা করুন। এছাড়াও হালকাভাবে বেঁধে বা খোঁপা করে রাখলে এটি চুলকে সুরক্ষিত রাখতে পারে এবং গোড়া থেকে ভেঙে যাওয়ার ঝুঁকি কমায়।
আপনার গর্ভাবস্থার পর চুল কাটান। আপনার মুখের আদল অনুযায়ী মানানসই একটি লেয়ারিং হেয়ারস্টাইল করতে পারেন। এছাড়াও  লেয়ারিং চুলগুলি পরিমাণে বেশি দেখায়, তাই চুল পড়লেও সেভাবে বোঝা যায়না। মাঝে মাঝে চুলকে ময়েশ্চারাইজ করলে ক্ষতিগ্রস্থ চুলগুলো আরও খারাপ হয় না। আপনার চুলের ধরণ অনুযায়ী প্রাকৃতিক তেল ব্যবহার করলে চুল গভীরভাবে ময়শ্চারাইজ হয়ে স্বাস্থ্যকর হয়।
ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করার পরে আপনি বায়োটিন পরিপূরক নিতে পারেন। বায়োটিন চুল এবং নখ দ্রুত বৃদ্ধি পেতে সহায়ক হিসেবে পরিচিত। এছাড়াও মাল্টিভিটামিন পরিপূরক শুরু করার জন্য এটি ভাল সময়। তবে যেকোনো ধরণের ওষুধ খাওয়ার আগে অবশ্যই আপনার ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করতে ভুলবেন না।

 

 

চুলে কোনও প্রকারের তাপ বা হিট দেওয়া থেকে বিরত থাকুন। চুলের উপর তাপ বা হিট ব্যবহার চুলকে বেশ শুষ্ক এবং ভঙ্গুর করতে পারে। আপনার আর্দ্র চুলকে যতটা সম্ভব বাতাসে শুকিয়ে নিন। চুলকে ব্লো-ড্রাই, স্ট্রেইট করা বা কার্ল করা থেকে বিরত থাকুন।
প্রসবোত্তর সময়ে চুল পড়া বাচ্চা হওয়ার কারণে শুধুই একটি স্বাভাবিক প্রতিক্রিয়া। তবে আপনি যদি এই সময়ে আপনার চুলের সঠিক যত্ন নেন তবে এটি ততটা দৃশ্যমান হবে না।

POST A COMMENT